পুলিশ সদস্যদের উচ্ছৃঙ্খল আচরণ সহ্য করা হবে না বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া। তিনি বলেছেন, অপরাধের মাত্রা অনুযায়ী সাংবাদিক লাঞ্ছনায় জড়িত পুলিশ সদস্যদের শাস্তি দেয়া হবে।

বুধবার বেলা ১১টায় রাজধানীর শাহবাগে ডিএমপির রাইজিং ডে উপলক্ষ্যে সর্বসাধারণের মধ্যে শুভেচ্ছা কার্ড বিতরণের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা বলেন তিনি।

গত ২৬ জানুয়ারি রাজধানীর শাহবাগে থানার সামনে পুলিশের হাতে সাংবাদিক নির্যাতনের ঘটনায় বিভাগীয় তদন্ত কমিটি মঙ্গলবার (৩১ জানুয়ারি) প্রতিবেদন জমা দেয়। যা ওই দিনই ডিএমপি কমিশনারের কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে। রমনা বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মারুফ হোসেন সরদার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এ ব্যাপারে সাংবাদিকদের করা প্রশ্নের জবাবে ডিএমপি কমিশনার বলেন, আমরা আগেও বলেছি, এখনও বলছি, ব্যক্তির দায় পুরো বাহিনী নেবে না। কেউ অপরাধ করেছে, প্রমাণ হলে শাস্তি তাকে পেতেই হবে।

তিনি বলেন, শাহবাগে সাংবাদিক লাঞ্ছনার ঘটনাটি গবেষণা-পর্যাচলনার বিষয় রয়েছে। তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। পুলিশ সদস্যদের অপরাধের মাত্রা বিবেচেনায় শাস্তির ব্যবস্থা নেয়া হবে।

উল্লেখ্য, গত ২৬ জানুয়ারি তেল-গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির ডাকা অর্ধদিবস হরতালের শেষ মুহূর্তে পুলিশের হাতে নির্যাতনের শিকার হন এটিএন নিউজের রিপোর্টার কাজী এহসান বিন দিদার এবং ক্যামেরাম্যান আ. আলিম।

রাজধানীর শাহবাগ থানার সামনে আটক ব্যক্তির ফুটেজ নিতে গিয়ে তারা এ হামলার শিকার হন। পরে তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ঘটনায় তাৎক্ষনিক এএসআই এরশাদকে সাসপেণ্ড এবং রমনা বিভাগের এডিসি (প্রশাসন) নাবিদ কামাল শৈবাল, এডিসি রমনা আজিমুল হক ও এসি রমনা ইহসানুল হককে নিয়ে তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।